Citizen_Charter

…।। স্বাগতম…।।

লক্ষ্মীপুর পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটে  স্বচ্ছতার সহিত প্রদত্ত সেবা সমূহঃ

সেবা সমূহের তালিকাঃ

১। কোন প্রকার প্রাইভেট/ কোচিং ছাড়া  শতভাগ ত্বাত্বিক ও ব্যবহারিক ক্লাস গ্রহনের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের  দক্ষ ও দেশ

প্রেমিক প্রকৌশলী হিসেবে গড়ে তোলা।

২। প্রতি বছর  শিক্ষার্থীদের শিক্ষা সফরের ব্যবস্থা করা।

৩। সপ্তম পর্বের  শিক্ষার্থীদের শিল্প প্রতিষ্ঠান পরিদর্শনের ব্যবস্থা।

৪। আভ্যন্তরীন পরিক্ষা শেষে দ্রুততম সময়ে ফলাফল ও ট্রান্সক্রিপ্ট প্রদান করা।

৫। ১ম, ২য় ও ৩য় পর্বের পরিক্ষার পর বদলী ইচ্ছুক শিক্ষার্থীদের কোন প্রকার ফি ছাড়া বদলীর আবেদন অগ্রবতী করা।

৬। ৮ম পর্ব সমাপনী পরীক্ষার পর বাস্তব প্রশিক্ষণ বাবদ ১২০০০/= টাকা  প্রদান করা  হয়। উল্লেখ্য বাস্তব প্রশিক্ষণ বাবদ ছাত্রপ্রতি সরকারি  বরাদ্ধ  ১৩০০০/= টাকা ।

খরচের বিবরণঃ

(ক)শিক্ষার্থীদের বাস্তব প্রশিক্ষণ সম্মানী ছাত্রপ্রতিঃ  ১২০০০/= টাকা।

(খ)তদারকি শিক্ষকের সম্মানী ছাত্রপ্রতিঃ         ৪০০/= টাকা।

(গ)শিল্প প্রতিষ্ঠানের তদারকি শিক্ষকের সম্মানী ছাত্রপ্রতি  ৬০০/= টাকা।

৮ম পর্বের সমাপনী পরীক্ষার সময় মৌখিক পরীক্ষা কিংবা ব্যবহারিক পরীক্ষার জন্য শিক্ষার্থীদের কোন প্রকার ফি দিতে হয়না।

 

৭। ৮ম পর্বের সমাপনী পরীক্ষার পর মন্ত্রনালয়ের নির্দেশনা মোতাবেক মাত্র বিশ(২০)টাকা ফি প্রদান সাপেক্ষে শিক্ষার্থীদের

কোর্স কমপ্লিশন সার্টিফিকেট প্রদান করা হয়। ফলাফলল  পরীক্ষার পর মন্ত্রনালয়ের নির্দেশনা মোতাবেক মাত্র

বিশ(২০)টাকা ফি প্রদান সাপেক্ষে শিক্ষার্থীদের প্রশংসাপত্র প্রদান করা হয়।

৮।  প্রতি পর্বে সরকারি বৃত্তির ১৬৫০/= টাকা  ক্যাশ শাখা থেকে প্রদান করা হয়। এক্ষত্রে কোন প্রকার ফি দিতে করা

৯।  প্রতি পর্বে বিশ্বব্যাংকের বৃত্তির ৪৮০০/= টাকা  অগ্রণী ব্যাংক, লক্ষ্মীপুর শাখা থেকে শিক্ষার্থীদের একাউন্টের মাধ্যমে

প্রদান করা হয়। এক্ষত্রেও শিক্ষার্থীদের কোন প্রকার ফি দিতে হয়না।

১০। প্রতি পর্বের ফরম ফিলাপের সময় দরিদ্র ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের কল্যাণ তহবিল হতে আর্থিক সহায়তা করা হয়।

১১। প্রতিবছর রেড়ক্রিসেন্ট তহবিল হতে শিক্ষার্থীদের ব্লাড গ্রুপিং ও হেপাটাইটিস-বি ভাইরাস সনাক্তকরনের ব্যবস্থা করা হয়।

১২। প্রতি পর্বের ফরম ফিলাপ ও সেমিস্টার চার্জ এর টাকা শিউর ক্যাশের মাধ্যমে জমা দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

১৩। প্রতি পর্বে প্রতি বিষয়ে ০৩টি  কুইজ টেস্ট, ০২টি ক্লাস টেস্ট এবং একটি পর্ব মধ্য পরীক্ষা গ্রহণ করা হয়।

১৪। প্রতি পর্বে আন্তঃবিভাগ বিতর্ক প্রতিযোগীতার আয়োজন করা হয়।

১৫। জেলা ও জাতীয় পর্যায়ে সকল প্রকার রোভার কার্যক্রমে অত্র ইনস্টিটিউটের রোভার সদস্যগণ  অংশগ্রহন করে থাকে।

এক্ষত্রে প্রতিষ্ঠান সকল ব্যয় বহন করে থাকে।

১৬। রোভার সদস্যদের দ্বারা ক্যাম্পাস পরিস্কার করনের ব্যবস্থা করা হয়।

১৭। এছাড়াও  শিক্ষক/কর্মকর্তা/কর্মচারীদের মাধ্যমে ক্যাম্পাস পরিস্কার করনের ব্যবস্থা করা হয়।

১৮। জাতীয় দিবসগুলো অত্র ইনস্টিটিউটে যথাযথ মর্যাদায় পালন করা হয়।

১৯।জব প্লেসমেন্ট সেলের মাধ্যমে পাসকৃত শিক্ষার্থীদের বিভিন্ন শিল্প প্রতিষ্ঠানে চাকুরী প্রাপ্তিতে সহযোগিতা প্রদান করা করা হয়।

লক্ষ্মীপুর পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের সামগ্রিক কার্যক্রমকে দুর্নীতিমুক্ত রাখতে সকলের সহযোগিতাকামনা করি। কোন কার্যক্রমে আর্থিক লেন-দেন, অবৈধ সুবিধা গ্রহনের বা এ জাতীয় কোন খবর  পাওয়া মাত্রই একাডেমিক ইনচার্জ বা অধ্যক্ষকে অবহিত করার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা হল।